লাইফস্টাইল

‘সুন্দরীদের’ দেখানো যাবে না টিভিতে

বিশ্বকাপের ম্যাচ চলাকালীন গ্যালারির সুন্দরীরা নজর কাড়ে প্রায়ই। নিজেদের দলের সমর্থনে বর্ণিল সাজে উপস্থিত হন রূপসী ভক্তরা। আর তাদের উদ্দাম নৃত্যে চোখ আটকে যায় ক্যামেরাম্যানদের। তবে এখন থেকে লাস্যময়ী দর্শকদের চোখ ধাঁধানো রূপ আর দেখা যাবে না টিভিতে। কারণ সম্প্রচার চ্যানেলগুলোকে সতর্ক করে দিয়েছে ফিফা।

ফিফা জানিয়ে দিয়েছে, খেলা চলাকালে স্টেডিয়ামের সুন্দরীদের থেকে ফুটবলেই বেশি মনোনিবেশ করতে হবে সম্প্রচারকারী সংস্থাগুলিকে। ফিফার দাবি, স্টেডিয়ামে সুন্দরীদের দেখানোয় নাকি রাশিয়ার মেয়েদের উপর যৌন অত্যাচার বেড়ে যাচ্ছে।

স্থানীয় একটি যৌন অত্যাচার বিরোধী সংস্থার তরফে দাবি করা হয়েছে, বিদেশ থেকে আগত সমর্থকরা রাস্তাঘাটে রাশিয়ার মেয়েদের শ্লীলতাহানি করার চেষ্টা করছে। এমনকী বিদেশ থেকে আসা নারী সাংবাদিকদের সঙ্গেও অশ্লীল আচরণ করা হচ্ছে।

ইতিমধ্যেই অন্তত গোটা তিরিশেক শ্লীলতাহানির অভিযোগ পাওয়া গিয়েছে বলেও দাবি ওই সংস্থাটির। সংস্থাটির দাবি, এই ধরনের অন্তত তিনশোটি ঘটনা ইতিমধ্যেই ঘটে গিয়েছে রাশিয়ায়। তবে সবক্ষেত্রে অভিযোগ পাওয়া যায়নি।

ফিফা সুত্রে খবর, সম্প্রচারকারী সংস্থাগুলিকে জানানো হয়েছে, ম্যাচ চলাকালীন যত কম সম্ভব মেয়েদের দেখানো যায় ততই ভাল। অপ্রয়োজনীয় ভাবে সুন্দরীদের দিকে ফোকাস করা হলে শাস্তিও হতে পারে সম্প্রচারকারী সংস্থার।

টুর্নামেন্ট শুরুর আগেই সমকামিতা এবং বর্ণবিদ্বেষ নিয়ে কড়া মনোভাব নিয়েছিল ফিফা। টুর্নামেন্ট চলাকালীন অযাচিত অসামাজিক কাজকর্মের উপরেও এবার নিয়ন্ত্রণ আনার চেষ্টা করছে ফিফা।