বিএনপি

শ্রদ্ধা ও ভালোবাসায় ওয়াশিংটনে তারেক রহমানের জন্মদিন পালিত

জন্মদিনে শ্রদ্ধা ও ভালোবাসায় সিক্ত হলেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মজলুম জননেতা তারেক রহমান। লন্ডন ছাড়াও দেশে-বিদেশে নানা অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে প্রিয় এই নেতাকে স্মরণ করেন বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদী রাজনীতির কোটি সমর্থক।

যুক্তরাষ্ট্রের রাজধানী ওয়াশিংটনে সোমবার (২০ নভেম্বর) স্থানীয় কাবাব কিং রেষ্ট্রুরেন্টে রাত ১২ টা ১ মিনিটে কেক কেটে মজলুম এই জননেতার জন্মদিন পালন করে গ্রেটার ওয়াশিংটন বিএনপি।

বর্ণাঢ্য এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে কেক কাটেন জাস্ট নিউজের সম্পাদক ও হোয়াইট হাউস সংবাদদাতা মুশফিকুল ফজল আনসারী।

ওয়াশিংটন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এ জে হুসেনের পরিচালনায় সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে মুশফিকুল ফজল আনসারী বলেন, তারেক রহমান বাংলাদেশের জনগণের জন্য একটি আশির্বাদ এবং শেখ হাসিনা ও তাদের দোসরদের জন্য এক আতঙ্কের নাম।

বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশান কার্যালয়ে ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন করার নিন্দা জানিয়ে তিনি বলেন, তারেক রহমান লন্ডন থেকে স্কাইপিতে মনোনয়নপ্রত্যাশীদের সাথে কথা বলায় শেখ হাসিনার এই অবস্থা! আর স্বশরীরে দেশে উপস্থিত হলে বঙ্গোপসাগর ছাড়া যে তাদের গতি নেই, তা সহজেই অনুমেয়।

তিনি বলেন, বিএনপির উৎসব মুখর পরিবেশে নয়াপল্টনে লীগের হেলমেট বাহিনী সেদিন আগুন সন্ত্রাস করেছে। আর প্রধানমন্ত্রীর বিকলাঙ্গ পুত্র জয় এই ঘটনায় উল্টো বিএনপির সবাইকে জেলে পুরতে চায়। অথচ মনোনয়ন জমার নামে মোহাম্মদপুরে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের বন্দুক যুদ্ধে দুটি তাজা প্রাণ ঝরে গেলেও আজ্ঞাবহ প্রশাসন নির্বিকার।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সাভার উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান দেওয়ান মইনুদ্দিন, বিএনপি নেতা লিয়াকত খান, নেছার আহমেদ, নাজমুল হক কামাল, মোহাম্মদ হোসেন, জাহিদ হোসেন, মাসুদ আহমেদ, মো: রহমান, লিটন প্রমুখ।

তারেক রহমানের দীর্ঘায়ু ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার সুস্থতা কামনা করে মোনাজাত পরিচালনা করেন হাজী লিয়াকত খান।