আর্ন্তজাতিক

যে কারনে এখনো লাদেনের দেহরক্ষীকে টাকা দেয় জার্মানী

আল কায়েদা নেতা ওসামা বিন লাগেন মারা গেছেন। তবে তার দেহরক্ষী বেঁচে আছেন। তিনি আছেন জার্মানীতে। আর এই দেহরক্ষীকে সরকার প্রতি মাসেই দেড় হাজার মার্কিন ডলার সহায়তা দেন। তিনি জার্মানীর বোচামে বসবাস করছেন। তবে শরনার্থী হিসেবে।জার্মান ট্যাবলয়েড পত্রিকা বিল্ডের বরাত দিয়ে মার্কিন গণমাধ্যম ভয়েস অব আমেরিকা এক প্রতিবেদনে এ কথা জানিয়েছে।

তারা জানিয়েছে, লাদেনের এই দেহরক্ষীর নাম সামি। তিনি স্ত্রী ও তিন সন্তান নিয়ে ১৯৯৭ সাল থেকে সেখানে বসবাস করছেন। এরমধ্যে রাজনৈতিক সহায়তা চেয়েছিলেন তিনি। তবে সেটা নাকোচ করে দিয়েছে জার্মান সরকার। একই সাথে নিরাপত্তার কথা ভেবে তাকে নিজ দেশেও পাঠাচ্ছেনা জার্মানী।

জার্মান নিরাপত্তা কর্মকর্তারা মনে করেন, সামি ১৯৯৯ থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত আফগানিস্তানে আল কায়েদার সন্ত্রাসী ক্যাম্পে প্রশিক্ষণ নেন। আর প্রশিক্ষণের পরই তাকে লাদেনের দেহরক্ষী করা হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সামিকে নিরাপত্তার জন্য ঝুঁকি মনে করা হয় এবং তাকে প্রতিদিন পুলিশের কাছে রিপোর্ট করতে হয়। যেটা তিনি ২০০৬ সাল থেকে করে আসছেন।