জাতীয়

ভোট দিয়ে উচ্ছ্বসিত রাসিকের ভোটাররা যা বললেন

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন (রাসিক) নির্বাচনে দুটি কেন্দ্রে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) ভোটগ্রহণ চলছে। নগরীর বিবি হিন্দু একাডেমি পুরুষ ও মহিলা কেন্দ্রে নেয়া হচ্ছে ইভিএমে ভোট। ইভিএমে ভোট দিয়ে উচ্ছ্বসিত ভোটাররা। বলছেন এ পদ্ধতিতেই স্বল্প সময়ে ও সহজে ভোট দেয়া সম্ভব।

সকাল ৮টা থেকে একযোগে শুরু হয়েছে রাসিক নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। ভোটগ্রহণ চলছে এখানকার পুরুষ ইভিএম কেন্দ্রের ৫টি এবং নারী কেন্দ্রের ৬টি বুথে। আলাদা লাইনে দাঁড়িয়ে ভোটাধিকার প্রয়োগ করছেন ভোটাররা।

এখানকার পুরুষ কেন্দ্রে ভোটার এক হাজার ৬৩৭ জন। সকাল সাড়ে ৯টা পর্যন্ত ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন ১২৭ জন। এই সময়ের মধ্যে নারী ভোটকেন্দ্রেও ভোট পড়েছে ১২৭টি। এখানকার নারী ভোটকেন্দ্রে ভোটার এক হাজার ৭৪৫ জন।

ইভিএমে প্রতীক রয়েছে ৫ জন সাধারণ কাউন্সিলর, ৪ জন সংরক্ষিত কাউন্সিলর এবং ৫ জন মেয়র প্রার্থীর। একজন প্রিসাইডিং অফিসার ছাড়াও প্রত্যেক কেন্দ্রে দায়িত্ব পালন করছেন ১১ সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার এবং ২২ জন পোলিং অফিসার।

এর আগে ২০ জুলাই থেকে ২৮ জুলাই পর্যন্ত কেন্দ্রে এসে ইভিএম ও পরীক্ষামূলক ভোট দেন ভোটাররা।

নতুন ভোটার আতিকা তাবাস্সুম বলেন, স্মার্ট নাগরিক হিসেবে স্মার্ট ভোটকেন্দ্রে ভোট দিলাম। সময় লাগলো কম, অভিজ্ঞতাও দারুন।

এ ভোটকেন্দ্রে ভোট দিলেন ষাটোর্ধ যমুনা রাণী দাস ও বীণা রাণী সাহা। নগরীর সাগরপাড়া বটতলা এলাকার বাসিন্দা তারা। প্রতিবেশী এ দুই নারী ভোটকেন্দ্রে এসেছিলেন একসঙ্গে। বেরিয়ে যাওয়ার সময় তারা জানান, লাইনে দাঁড়িয়ে ভোট দিলেন, কিন্তু সময় লাগলো একেবারেই কম। এর আগে পরীক্ষামূলক ভোটে অংশ নিয়েছিলেন তারা। ফলে সহজেই ভোট দিতে পারলেন।

ভোট দিয়ে গেলেন সাগরপাড়া এলাকার বাসিন্দা আজিজুল বারি তালুকদার (৭০)। তিনি বলেন, লাইনে দাঁড়িয়ে দীর্ঘ অপেক্ষা নয়, স্বল্পসময়ে ভোট দেয়া গেল। যেকোনো বয়সী মানুষই স্বাচ্ছন্দে ভোট দিচ্ছেন। এখানে একজনের একাধিক ভোট দেয়ার সুযোগ নেই।

এখানকার নারী কেন্দ্রে আসলাম উদ্দিন এবং পুরুষ কেন্দ্রে অমিত কুমার প্রামানিক প্রিসাইডিং অফিসার হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তারা জানিয়েছেন, সকাল ৮টা থেকে কোনো ঝামেলা ছাড়াই ভোটগ্রহণ চলছে। ভোটাররা এসে ভোট দিয়ে যাচ্ছেন। তবে পুরুষ ভোটকেন্দ্র দ্বিতীয় তলায় হওয়ায় বৃদ্ধদের জন্য অসুবিধা হচ্ছে।

নগরীর ২২ নম্বর ওয়ার্ডের মোট ভোটার ৬ হাজার ৬১২ জন। এ দুই কেন্দ্র ছাড়াও বরেন্দ্র কলেজ এবং রাজশাহী ইসলামী শিক্ষা ও গবেষণা কেন্দ্র মডেল স্কুল কেন্দ্রে ব্যালটে ভোটগ্রহণ চলছে।

এর আগে ২০১৩ সালের সিটি নির্বাচনে প্রথমবারেরমত ইভিএমে ভোট দেন ভোটাররা। সেবার নগরীর ৮ নম্বর ওয়ার্ডের লক্ষ্মীপুর বহুমুখি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, গভ. ল্যাবরেটরি হাইস্কুল এবং সরকারি শিক্ষক প্রশিক্ষণ মহাবিদ্যালয় কেন্দ্রের ২০টি বুথে বসানো হয় ইভিএম। কিন্তু যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে শিক্ষক প্রশিক্ষণ মহাবিদ্যালয় কেন্দ্রের একটি বুথের ৩১০ ভোট গণনা আটকে যায়। পরে ওই কেন্দ্রের ভোটাররা ব্যালটে ভোট দেন।

জানতে চাইলে রাসিক নির্বাচনের সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও সিনিয়র জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আতিয়ার রহমান জানান, ভোটারদের উদ্বুদ্ধ করতে পরীক্ষামূলক ভোটের আয়োজন করা হয়। এছাড়া ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদেরও প্রশিক্ষিত করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here