চট্টগ্রাম বিভাগ

গৃহবধূর মৃতদেহ হাসপাতালে রেখে স্বামী পলাতক

এফপি

ডেস্কনিউজ; নিলুফা ইয়াসমিন (২১) নামের এক গৃহবধূর মৃত্যুর পর হাসপাতালে মৃতদেহ রেখে স্বামী ও তার পরিবারের লোকজন পালিয়েছে এ ঘটনা কক্সবাজার সদর উপজেলার সমিতিপাড়া এলাকার।

বুধবার (১৯ জুন) ভোরে কক্সবাজার সদর হাসপালে এ ঘটনা ঘটে। নিহত নিলুফা কক্সবাজার সদর উপজেলার পিএমখালী ইউনিয়নের তুতোকখালীর জিয়াউর রহমানের মেয়ে ও সমিতিপাড়ার পদেনার ডেইল এলাকার নুরুল হাকিমের স্ত্রী।

নিহতের আত্মীয়দের সাথে কথা বলে জানা যায়, এক বছর আগে নুরুল হাকিমের সঙ্গে নিলুফা ইয়াসমিনের বিয়ে হয়। বিয়ের কিছুদিন পর থেকেই নানান ভাবে তাকে মারধর ও নির্যাতন শুরু করে শ্বশুরবাড়ির লোকজন। কিছুদিন আগে শ্বশুরবাড়ির অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে বাবার বাড়িতে পালিয়ে আসেন নিলুফা।

তারপর গ্রাম্য সালিশের মাধ্যমে সমঝোতায় করার পর আবার স্বামীর বাড়িতে আসেন নিলুফা ইয়াসমিন। কিন্তু তার আবার নির্যাতন শুরু হলে রাগ করে গত সোমবার বিষ পান করেন নিলুফা। বিষয়টি টের পেয়ে তার স্বামী নিলুফাকে হাসপাতালে ভর্তি করেন। তিন দিন হাসপাতালে থাকার পর বুধবার ভোরে নিলুফা মারা যান।

নিলুফার লাশ রেখে সুযোগ বুঝে স্বামী হাকিম ও তার পরিবারের লোকজন হাসপাতালে থেকে পালিয়ে যান। খবর পেয়ে নিলুফার বাবা জিয়াউর রহমান হাসপাতালে গিয়ে মেয়ের লাশ নেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে কক্সবাজার সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফরিদ উদ্দিন খন্দকার বলেন, ‘বিষয়টি আমাদের নজরে এসেছে। লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সূত্র; জুমবাংলা